editor

অক্টোবর ১৬, ২০২০

রাজশাহী সরকারি কলেজ মানবিক পুরষ্কারে সম্মানিত ড. এহসান হক

রাজশাহী সরকারি কলেজ মানবিক পুরষ্কারে সম্মানিত ড. এহসান হক

নিউইয়র্ক : বিশ্বজুড়ে সুবিধাবঞ্চিত মানুষের প্রতি অসাধারণ নিষ্ঠা, নেতৃত্ব এবং প্রতিশ্রুতির মাধ্যমে মানবতার ক্ষেত্রে অসামান্য অবদানের স্বীকৃতি হিসেবে ডিসট্রেসড চিলড্রেন এ্যান্ড ইনফ্যান্টস ইন্টারন্যাশনাল (ডিসিআই)-এর প্রতিষ্ঠাতা ও নির্বাহী পরিচালক, ডাঃ এহসান হক সম্প্রতি রাজশাহী সরকারি কলেজ কর্তৃক মানবিক পুরষ্কারে ভ’ষিত হয়েছেন।

গত ১০ই অক্টোবর রাজশাহী সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোঃ হাবিবুর রহমান এই পুরষ্কার ঘোষণা করেন। পুরষ্কার ঘোষণার সময় তিনি বলেন, “আমরা আনন্দিত যে, বিশ্বব্যাপী সুবিধাবঞ্চিত মানুষের জন্য কাজ করা শিশু অধিকারকর্মী এবং মানবতাবাদী নেতা হিসাবে আজীবন প্রয়াসের জন্য রাজশাহী কলেজের প্রাক্তন ছাত্র ডাঃ এহসান হককে রাজশাহী কলেজ মানবিক পুরষ্কারে ভূষিত করেছে। ডিসিআই-এর মাধ্যমে তিনি একটি স্বচ্ছ এবং স্থায়ী সহযোগিতার ব্যবস্থা করেছেন এবং হাজার হাজার সুবিধাবঞ্চিত শিশুকে মানসম্মত শিক্ষা, স্বাস্থ্যসেবা এবং চক্ষুসেবার মাধ্যমে উন্নত জীবনের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। আমাদের কলেজের একজন প্রাক্তন শিক্ষার্থীর এই অসামান্য অর্জনের জন্য আমরা রাজশাহী কলেজ, এই কলেজের শিক্ষার্থীরা এবং সমস্ত অনুষদ অত্যন্ত গর্বিত। আমরা আশা করি আমাদের কলেজের শিক্ষার্থীরা ডাঃ হকের এই উৎসর্গ, নিঃস্বার্থ অবদান এবং সুবিধাবঞ্চিতদের প্রতি তার আবেগ দ্বারা অনুপ্রাণিত হবে।”

২০২১ সালের ১৬ই জানুয়ারিতে এক অনুষ্ঠানের মাধ্যমে এই পুরষ্কার প্রদান করা হবে। উক্ত অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন ডিসিআই-য়ের শুভেচ্ছাদূত বিখ্যাত অভিনেত্রী ববিতা আক্তার এবং স্বনামধন্য গায়িকা সাবিনা ইয়াসমিন। অভিনেত্রী ববিতা ডাঃ হককে অভিনন্দন জানিয়ে বলেন, “এই পুরষ্কারের জন্য রাজশাহী কলেজকে ধন্যবাদ। ডাঃ এহসান হক একজন সত্যিকারের মানবতাবাদী। বিগত তিন দশক ধরে তাঁর জীবনের একটি অঙ্গ হয়ে আছে স্বেচ্ছাসেবা এবং সামাজিক উন্নয়ন। আমি ব্যক্তিগতভাবে তাঁর অবিশ্বাস্য প্রতিশ্রুতি, মমতা এবং নেতৃত্ব প্রত্যক্ষ করেছি। সুবিধাবঞ্চিতদের জন্য কাজ করার ক্ষেত্রে আমি প্রতিনিয়ত তাঁর দ্বারা অনুপ্রাণিত হয়েছি এবং আশা করি আপনারাও সবাই অনুপ্রাণিত হবেন।”

পুরষ্কার ঘোষণার পরে ডাঃ এহসান হক বলেন, “আমি এই সম্মান পাওয়ার জন্য সত্যিই কৃতজ্ঞ এবং গর্বিত। এই স্বীকৃতি অবশ্যই আমাদের পুরো দলকে অনুপ্রাণিত করবে এবং আমাদের কঠিন এবং চ্যালেঞ্জিং মিশন চালিয়ে নিয়ে যাওয়ার শক্তি ও অনুপ্রেরণা দেবে। যতদিন না সমস্ত শিশু নিরাপদ, স্বাস্থ্যবান এবং একটি উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ লাভ করবে ততদিন পর্যন্ত আমি শিশুদের পক্ষে কাজ করা বন্ধ করব না। যেসব ডোনার, স্পন্সর, ভলান্টিয়ার এবং মহান ব্যক্তিগণ বছরের পর বছর ধরে আমাদের মিশনকে সমর্থন করেছেন এবং বাংলাদেশে ডিসিআই-এর কাজকে সম্ভব করে তুলেছেন, ডিসিআই তাদের প্রতি কৃতজ্ঞ।”

ডাঃ এহসান হক দারিদ্র্য, ক্ষুধা, শিশুশ্রম এবং প্রতিরোধযোগ্য অন্ধত্বের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের মিশনে ২০০৩ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ে ডিসিআই প্রতিষ্ঠা করেন। সংস্থাটি শিশু অধিকার রক্ষা এবং সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের স্বাস্থ্য ও বিবিধ কল্যাণে নিবেদিত। ডিসিআই-এর দু’টি লক্ষ্য রয়েছে: প্রথমত, সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের অধিকারের জন্য কাজ করা; এবং দ্বিতীয়ত, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র, বাংলাদেশ এবং ভারতে সংগঠনের কার্যক্রমগুলিতে যুবসম্প্রদায়কে স্বেচ্ছাসেবক হিসোব সংযুক্ত করা। ডাঃ হক-এর অসামান্য নেতৃত্বে ডিসিআই বিগত ১৭ বছর ধরে উল্লেখযোগ্যভাবে প্রসার লাভ করেছে এবং হাজার হাজার শিশুর বিকাশের জন্য বর্তমানে বাংলাদেশ, ভারত, নেপাল এবং নিকারাগুয়া-এই চারটি দেশের বিভিন্ন অলাভজনক প্রতিষ্ঠানের সাথে বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কর্মকান্ড পরিচালনা করছে।

আমাদের নেটওয়ার্ককে শক্তিশালী করার লক্ষ্যে আমাদের মিশনে যোগদান করুন এবং বাংলাদেশ ও বিশ্বব্যাপী শিশুশ্রম, ক্ষুধা, দারিদ্র্য ও অন্ধত্বের বিরুদ্ধে সোচ্চার হন। আপনি যদি শিশু অধিকার নিয়ে কাজ করেন এবং ডিসিআই-এর সাথে যোগাযোগ করতে চান, বা আপনার যদি কোন প্রশ্ন বা মন্তব্য থাকে তবে দয়া করে আমাদের সাথে যোগাযোগ করুন: +১-২০৩-৩৭৬-৬৩৫১ বা +১-৮৫৭-২৯২-৯১৮৬ (মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র), +৮৮-০১৭২৬০৫১৭০০, +৮৮-০১৭২৭২৬৪৬৮৮, +৮৮০২-৮১০৫৩১ (বাংলাদেশ), ই-মেইল: dci@distressedchildren.org , dciworld@gmail.com

ডিসট্রেসড চিলড্রেন এ্যান্ড ইনফ্যান্টস ইন্টারন্যাশনাল (ডিসিআই) এর সংক্ষিপ্ত পরিচয়:

ডিসট্রেসড চিলড্রেন এ্যান্ড ইনফ্যান্টস ইন্টারন্যাশনাল (ডিসিআই) যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক একটি আন্তর্জাতিক অলাভজনক শিশু অধিকার সংস্থা যা ২০০৩ সালে ইয়েল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রতিষ্ঠিত হয় এবং বর্তমানে এর সদর দফতর ক্যামব্রিজের হার্ভার্ড স্কয়্যারে অবস্থিত। ডিসিআই শিশুদের অধিকার রক্ষায় শিশুশ্রম ও অন্ধত্ব প্রতিরোধে, শারীরিক প্রতিবন্ধীদের উন্নয়নে যুক্তরাষ্ট্র এবং উন্নয়নশীল দেশগুলোতে শিক্ষা, স্বাস্থ্যসেবা, চক্ষুসেবা প্রদানের মাধ্যমে দারিদ্র্য দূরীকরণ


সর্বশেষ সংবাদ

যুক্তরাষ্ট্রে ‘ফেডারেশন অব বাংলাদেশি অ্যাসোসিয়েশন্স ইন নর্থ আমেরিকা’-ফোবানার নতুন কমিটি

যুক্তরাষ্ট্রে ‘ফেডারেশন অব বাংলাদেশি অ্যাসোসিয়েশন্স ইন নর্থ আমেরিকা’-ফোবানার নতুন কমিটি

নিউজ ডেস্কঃ প্রবাসী সংগঠন ‘ফেডারেশন অব বাংলাদেশি অ্যাসোসিয়েশন্স ইন নর্থ আমেরিকা’ (ফোবানা) নিজেদের নতুন কমিটি ঘোষণা করেছে। শুক্রবার ফোবানার নির্বাচন কমিশনের

কিডনি ভালো রাখতে করণীয়

কিডনি ভালো রাখতে করণীয়

লাইফস্টাইল ডেস্কঃ কিডনির যত্ন নিতে হবে। মাত্রাতিরিক্ত ওজন বৃদ্ধি, অনিয়ন্ত্রিত ডায়াবেটিস ও হাইপ্রেসার, প্রেসক্রিপশন ছাড়া ব্যথার ওষুধ সেবন, অতিরিক্ত অ্যান্টিবায়েটিক

পায়ুপথে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ‘অস্ত্র’, সেনাবাহিনী তলব

পায়ুপথে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের ‘অস্ত্র’, সেনাবাহিনী তলব

পায়ুপথে দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময়কার একটি ‘অস্ত্র’ আটকে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে ভর্তি হয়েছিলেন এক ব্যক্তি। সেটি বিস্ফোরণের ভয়ে পুলিশ ও সেনাবাহিনীকে

আলিম পরীক্ষার ২ বিষয়ের তারিখ পরিবর্তন

আলিম পরীক্ষার ২ বিষয়ের তারিখ পরিবর্তন

নিউজ ডেস্কঃ প্রশ্নপত্র ফাঁসের ঝুঁকি থাকায় চলমান আলিম পরীক্ষার দুই বিষয়ের তারিখ পরিবর্তন করেছে বাংলাদেশ মাদরাসা শিক্ষাবোর্ড। ওই দুটি বিষয়

হোয়াটসঅ্যাপে চালু হলো পোস্ট ডিলিট সুবিধা 

হোয়াটসঅ্যাপে চালু হলো পোস্ট ডিলিট সুবিধা 

নিউজ ডেস্কঃ বর্তমান সময়ে যোগাযোগের জনপ্রিয় মাধ্যম হোয়াটসঅ্যাপ। অক্টোবর ২০২১ এর হিসাব অনুযায়ী এর ব্যবহারকারীর সংখ্যা ২০০ কোটিরও অধিক। তাই ব্যবহারকারীর

চীনে স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত ৪ করোনা রোগী শনাক্ত

চীনে স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত ৪ করোনা রোগী শনাক্ত

নিউজ ডেস্কঃ চীনের শিজিয়াজুয়াং অঞ্চলের লুকুয়ান জেলায় স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত চারজন নতুন করোনা রোগী পাওয়া গেছে। শুক্রবার এ খবর দিয়েছে জাস্ট আর্থ

চীন সাগরে দ্বিপাক্ষিক সংঘাত বনাম তাইওয়ানের ভবিষ্যৎ

চীন সাগরে দ্বিপাক্ষিক সংঘাত বনাম তাইওয়ানের ভবিষ্যৎ

নিউজ ডেস্কঃ আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে চীনের কাছে সবচেয়ে স্পর্শকাতর প্রসঙ্গ তাইওয়ান। চীন দ্বীপটির উপকূলে সেনা সমাবেশ ও সামরিক শক্তি বাড়ানোর পাশাপাশি

ইউক্রেনের অর্ধেক দখল করে রাশিয়ার কী লাভ

ইউক্রেনের অর্ধেক দখল করে রাশিয়ার কী লাভ

নিউজ ডেস্কঃ আবারও বিশ্বশক্তির মাথাব্যথার কারণ হয়ে উঠেছে ইউক্রেন সংকট। ২০১৪ সালেও ইউক্রেনের ক্রিমিয়া নিয়ে হইচই পড়ে গিয়েছিল। সেবার রাশিয়ার পরোক্ষ