শুক্রবার, ২২ জানুয়ারী ২০২১, ১১:৩২ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম :
দেশের ক্রিকেটের কথা চিন্তা করেই মাশরাফিকে বাদ: প্রধান নির্বাচক

দেশের ক্রিকেটের কথা চিন্তা করেই মাশরাফিকে বাদ: প্রধান নির্বাচক

প্রধান নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন জানিয়েছেন, দেশের ক্রিকেটের কথা চিন্তা করেই বাদ দেওয়া হয়েছে মাশরাফিকে। তবে নির্বাচকদের জন্য মাশরাফিকে বাদ দেওয়া কঠিন ছিল।

সোমবার ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরের জন্য ওয়ানডে ও টেস্টের প্রাথমিক দল ঘোষণা করেছেন নির্বাচকরা।

এরপর মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে মাশরাফির বাদ পড়া নিয়ে কথা বলেছেন দুই নির্বাচক মিনহাজুল আবেদীন নান্নু ও হাবিবুল বাশার। প্রধান নির্বাচকের কথাতেই উঠে এসেছে মাশরাফিকে বাদ দেওয়াটা তাদের জন্য কতটা কঠিন ছিল, ‘ওর (মাশরাফি) প্রতি আমাদের শ্রদ্ধা আছে। ও আমাদের দেশের জন্য অনেক কিছু দিয়েছে। তাই এটা আমাদের জন্য কঠিন সিদ্ধান্ত ছিল। তবে আমাদেরকে বাস্তবতা মানতেই হবে। সামনের দিকে এগিয়ে যেতে হবে। সেই ভাবনা থেকেই আমরা সম্মিলিত ভাবে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমি মনে করি নতুন যে মাশরাফির জায়গায় খেলবে, তার জন্য এটা অনেক বড় সুযোগ।’

মাশরাফিকে বাদ দেওয়ার কারণ ব্যাখ্যা করতে গিয়ে মিনহাজুল আবেদীন বলেছেন, ‘টিম ম্যানেজম্যান্ট আমাদেরকে অনেক কিছুর পরিকল্পনা দিয়েছে এবং আমরাও আমাদের পরিকল্পনা নিয়ে অনেক আলোচনা করেছি। আগেই বললাম, যে সিদ্ধান্তটা অনেক আলোচনার পর নেওয়া হয়েছে। আমাদের দেশের ক্রিকেটের কথা চিন্তা করে, আগামীতে এগিয়ে যাওয়ার কথা ভেবেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

মাশরাফি যে দলে থাকছেন না, প্রধান নির্বাচক সেই ব্যাপারে তাকে আগেই অবগত করে রেখেছিলেন। নান্নু বলেন, ‘আমি কথা বলেছি তার (মাশরাফি) সাথে। ওর সঙ্গে বিস্তারিত আলোচনা করেছি। ওকে না থাকার বিষয়ে বলে দিয়েছি। এখানে ভুল বোঝাবুঝির কিছু নেই।’

প্রধান নির্বাচক আরও বলেছেন, ‘তরুণ ক্রিকেটারদের তো আমাদের সুযোগ করে দিতে হবে। ২০২১ সাল আমরা নতুনভাবে শুরু করছি, ১০ মাস পরে সবাই কিন্তু নতুন করে শুরু করছে। এই মহামারিতে আমরা ১০ মাস পিছিয়ে গেছি। এখন ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ দিয়ে ভালো ক্রিকেট শুরু করতে পুরো দলই উন্মুখ হয়ে আছে।’

এবার বাদ পড়লেও ভবিষ্যতে মাশরাফির জন্য জাতীয় দলের জায়গা উন্মুক্ত থাকবে কিনা, এমন প্রশ্নে প্রধান নির্বাচক বলেছেন, ‘ও (মাশরাফি) খেলা চালিয়ে যাবে। এটা পুরোপুরি তার ওপর নির্ভর করছে। এছাড়া ও ঘরোয়া ক্রিকেটও খেলবে, দেখা যাক কী হয়।’

মাশরাফি ইস্যুতে প্রধান নির্বাচকের মতো হাবিবুল বাশারও বাস্তবতা মেনে নেওয়ার পক্ষে কথা বললেন, ‘মাশরাফি ২০ বছর ধরে আমাদের সার্ভিস দিয়ে আসছে। মাশরাফি কী করেছে, আমরা সবাই জানি। তাই ওর সাথে কারো তুলনা আমি করবো না। ও সবসময় আমাদের জন্য আইকনিক প্লেয়ার ছিল। কিন্তু আমাদেরকে তো ভবিষ্যতের দিকে তাকাতে হবে। আমি মনে করি, আগামী এক বছর সার্ভিস দেওয়া ওর জন্য কঠিন হয়ে যাবে। সেক্ষেত্রে আমরা যদি সামনের দিকে তাকিয়ে নতুন কাউকে দিয়ে সুযোগ তৈরি করতে পারি। সেটাই সবচেয়ে বড় কাজ হবে।’

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ADVERTISEMENT




© All rights reserved © 2020 globalview24.Com
Design BY Positive IT USA
ThemesBazar-Jowfhowo