বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে পাঠালো পাকিস্তান

দ্বিতীয় দফার পাকিস্তান সফরে একমাত্র টেস্ট ম্যাচে মাঠে নামলো বাংলাদেশ। আজ শুক্রবার রাওয়ালপিন্ডিতে টস জিতে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে স্বাগতিকরা।

 

নিজেদের সর্বশেষ পাঁচ টেস্টের সবকটিতেই হার বাংলাদেশের। বলা বাহুল্য যার মধ্যে চারটিই ইনিংস ব্যবধানে এবং দেশের বাইরে। দেশের মাটিতে একটি টেস্ট ছিল, যেখানে সঙ্গী হয়েছে নবাগত আফগানিস্তানের কাছে হারের লজ্জা। সাদা পোশাকে গত বছরটা খুবই বাজে কেটেছিল বাংলাদেশের। অবশ্য এই ফরম্যাটে নিজেদের শুরুর লগ্ন থেকেই বিদেশের মাটিতে টেস্টে বাংলাদেশের রেকর্ড সুখকর নয়। এমন তিক্ত নিকট অতীত নিয়েই আজ পাকিস্তানের বিরুদ্ধে মাঠে বাংলাদেশ দল। প্রস্তুতির ঘাটতি রয়েছে এবং দলটাও পূর্ণ শক্তির নয়। সবমিলিয়ে অনেক প্রতিকূলতা নিয়েই পাকিস্তান মিশন শুরু করলো মুমিনুল হকের দল। এসবের মাঝেই সাদা পোশাকে পরাজয়ের বৃত্ত ভাঙতে চান বাংলাদেশের অধিনায়ক। পাকিস্তানের বিপক্ষেই জয়ের খরা কাটানোর টার্গেট করছেন তিনি।

.১৬ বছর পর পাকিস্তানের মাটিতে টেস্ট খেলছে বাংলাদেশ। দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্ট এটি। দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচ আগামী এপ্রিলে অনুষ্ঠিত হবে।

 

রাওয়ালপিন্ডিতে গতকাল একদিনের অনুশীলনই পুঁজি মুমিনুল বাহিনীর। হারের বৃত্ত ভাঙা সম্পর্কে ম্যাচ পূর্ব সংবাদ সম্মেলনে গতকাল মুমিনুল বলেছেন, ‘দেখুন এক সময় না এক সময় তো বৃত্তটা ভাঙতেই হবে। ইনশাল্লাহ এই বৃত্তটা ভাঙতে সবাই প্রস্তুত। খুব ভালো প্রস্তুতি নিয়েছে। ঐ হিসেবে চিন্তা করলে আমরা আশাবাদী ম্যাচটি নিয়ে।’

 

গত ৪ ফেব্রুয়ারি সকালে রাওয়ালপিন্ডিতে পৌঁছেছে বাংলাদেশ দল। সে দিন বিশ্রাম নিয়ে গতকাল অনুশীলন করে গোটা দল। কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নেওয়ার সুযোগটা সেভাবে পাননি ক্রিকেটাররা। অধিনায়কের চাওয়া, দ্রুত কন্ডিশনে মানিয়ে নেওয়া। মুমিনুল বলেছেন, ‘যে দেশেই যাবেন আপনাকে কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নিতে হবে। আমরা যত তাড়াতাড়ি সম্ভব কন্ডিশনের সঙ্গে মানিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করছি। আমার মনে হয় কন্ডিশনটা অনেক ভালো আছে। একটু ঠান্ডা আছে। ঐ হিসেবে চিন্তা করলে আমরা ভালো মানিয়ে নিতে পারবা।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *