দুর্দান্ত শুরু করেও যেসব কারণে হারল বাংলাদেশি

 

টি-২০ সিরিজের প্রথম ম্যাচেই ঐতিহাসিক জয়। তবে রাজকোটে সে সুযোগ হারাল বাংলাদেশ। অথচ দুর্দান্ত শুরু করেছিলেন বাংলাদেশি ওপেনাররা। ঠিক কোন জায়গায় পিছিয়ে গেল তারা ? দেখে নেয়া যাক।

 

১. বাংলাদেশের ওপেনার জুটি লিটন দাস ও মোহাম্মদ নাঈম শুরুটা বেশ ভাল ভাবে করেছিলেন। তবে তার রেশ ধরে রাখতে পারেননি শেষ পর্যন্ত। উপর বড় রানের ভিত গড়তে ব্যর্থ হন দুজনেই।

 

২. আইসিসির শাস্তির কোপে বাংলাদেশ দলে নেই সাকিব আল হাসান। নেই তামিম ইকবাল, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিনও।

 

৩. মুশফিকুরের ওপর অতিমাত্রায় নির্ভরতাও বাংলাদেশের হারের একটা বড় কারণ। রাজকোটে দলের অন্য ব্যাটসম্যানেরাও তেমন কিছু করে উঠতে পারেননি।

 

৪. টি-২০তে অনেক সময় শেষ কয়েক ওভার বেশ গুরুত্বপূর্ণ হয়ে ওঠে। ডেথ ওভারে চার-ছয়ের বন্যা তো দূরের কথা, ১৮.৩ ওভারে মাহমুদুল্লাহর আউটের পর বাংলাদেশ ইনিংসের শেষ ৯ বলে মাত্র ১১ রান ওঠে।

 

৫. ভারতের বিরুদ্ধে যে রানের পুঁজি নিয়ে বল করতে নামেছিল বাংলাদেশ, তাতে প্রথম পাঁচ ওভারের মধ্যে উইকেট তুলে নিতেই হত। তবে রোহিত শর্মা বা শিখর ধাওয়ানের বিরুদ্ধে সে সুযোগ তৈরি করতে পারেননি মুস্তাফিজুররা।

 

৬. পেসারদের পাশাপাশি বাংলাদেশের স্পিনাররাও ভেল্কি দেখাতে ব্যর্থ হন। একমাত্র আমিনুল ইসলাম ছাড়া কেউই উইকেট পাননি। ভারতের দুই ওপেনারকেই আমিনুল তুলে নিলেও আফিফ হোসেন ও মোসাদ্দেক হোসেনের বল টলাতে পারেনি কোনও ভারতীয় ব্যাটসম্যানকেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *